সাংবাদিক নিয়োগঃ
আজকের নোয়াখালী শিক্ষানবীশ সাংবাদিক নিয়োগ - আগ্রহীরা সিভি পাঠিয়ে দিন আমাদের মেইলঃ ajkernoakhali2019@gmail.com এ
খামারে হামলা চালিয়ে ২০০ কোয়েল পাখি হত্যা!

খামারে হামলা চালিয়ে ২০০ কোয়েল পাখি হত্যা!

আজকের নোয়াখালী; নিজস্ব প্রতিনিধি:

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে একটি কোয়েল পাখির খামারে হামলা ও ভাঙচুর চালিয়ে ২০০ এর বেশি পাখিকে মেরে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা। পাখিগুলোর সব ডিমও ভেঙে দিয়ে গেছে তারা। এতে খামার মালিকের অর্ধলাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে।

গত বৃহস্পতিবার (২৮ নভেম্বর) দিবাগত রাতে উপজেলার মীরওয়ারিশপুর ইউনিয়নের মীরআলীপুর গ্রামের আফানিয়াবাজার এলাকায় এ ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটে।

শনিবার (৩০ নভেম্বর) আবুল কাশেম সুমন আজকের নোয়াখালী’কে বলেন, খামারটিতে প্রায় ৫০০ কোয়েল পাখি ছিল। খামারটির বেশির ভাগ কোয়েল পাখিই ডিম দিতে শুরু করেছে। আর এমন সময় এ ঘটনা ঘটল।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে এগারোটার দিকে খামার থেকে বাড়িতে ঘুমাতে যাই। শুক্রবার সকাল নয়টায় খামারে এসে দেখি, খামারের বেড়া ভেঙে ঢুকে কে বা কারা ভেতরের মালামাল সব এলামেলো করে রেখেছে। এরপর দেখি মেঝেতে দুইশত এর বেশি কোয়েল পাখি মরে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে পড়ে আছে। বাকি তিনশত পাখির মধ্যে ৮০-৯০টিকে অক্ষত পেয়েছি। আর অন্য পাখিগুলো হাওয়া হয়ে গেছে।

যুব উন্নয়ন থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে ছয় মাস আগে ঋণ করে ৫০০ কোয়েল পাখির বাচ্চা কিনে এ খামারটি স্থাপন করেন সুমন। পাখিগুলো বড়ও হচ্ছিল। ডিমও দেয়া শুরু করেছিল এদের অধিকাংশই। আর এরই মধ্যে দুর্বত্তরা এমন কাণ্ড করল।

কে বা কারা, কী উদ্দেশ্যে এ ঘটনা ঘটিয়েছে তা এখনও বুঝতে পারছেন না ক্ষতিগ্রস্ত সুমন।

তিনি বলেন, আমার এমন কোনো শত্রু নেই যে, আমাকে সর্বস্বান্ত করতে এমন পরিকল্পনা করতে পারে। আমি কারো কোনো ক্ষতি করিনি। শুরুতেই এভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় কীভাবে ধার শোধ করব তা নিয়েই চিন্তিত আমি।

এ ব্যাপারে বেগমগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হারুন-উর-রশিদ চৌধুরী আজকের নোয়াখালী’কে বলেন, শুক্রবার সকালে ভুক্তোভোগী খামারি থানায় এসে একটি লিখিত অভিযোগ করেন। তার সেই অভিযোগের প্রেক্ষিতে আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। ওই ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের বিষয়ে কোনো তথ্য দিতে পারেননি খামারি। তাই সংশ্লিষ্ট পুলিশ কর্মকর্তাকে ঘটনাস্থলে গিয়ে এ বিষয়ে খোঁজ নিয়ে তদন্তে নামতে বলেছি।

শেয়ার করুন